ঔষধ ছাড়াই উচ্চ রক্তচাপ যেভাবে নিয়ন্ত্রনে রাখবেন

উচ্চ রক্তচাপ বা হাই ব্লাড প্রেসার বর্তমানে একটি কমন সমস্যা।এই ব্যধিতে আক্রান্ত লোকের সংখ্যা খুবই বেশি। উচ্চ রক্তচাপের কারণে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। যেমন হৃদরোগ,স্ট্রোক,কিডনি জনিত সমস্যা ডায়াবেটিস ইত্যাদি রোগে আক্রান্ত করে ফেলে এই উচ্চ রক্তচাপ। উচ্চ রক্তচাপ রোগীকে ক্রমশ মৃত্যুর দিকে এগিয়ে নিয়ে যায় তাই আমাদের উচিত উচ্চ রক্তচাপের আক্রান্ত হওয়ার আগেই এর ব্যবস্থা গ্রহণ করা।আমরা চাইলে ওষুধ ছাড়াই উচ্চ রক্তচাপ থেকে মুক্ত থাকতে পারি সে ক্ষেত্রে আমাদের স্বাস্থ্য সচেতন হতে হবে ।এবং আক্রান্ত হয়ে গেলে এর প্রতিকার করার সম্পর্কে আমাদের জানতে হবে। কিভাবে আপনি ঔষধ ছাড়াই উত্তর উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারেন তাহলো-


শরীরের ওজন কমানো-
শরীরের ওজন উচ্চ রক্তচাপ বৃদ্ধিতে একটি বিশেষ ভূমিকা পালন করে শরীরের ওজন যত বৃদ্ধি পাবে উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকিও ততো বৃদ্ধি পাবে। এর পাশাপাশি হাই ব্লাড প্রেসারের পিছণে রয়েছে আমাদের মোটা হওয়ার কারণ। শরীর এত মোটা হয় হাই ব্লাড প্রেসার এর ঝুঁকি ও ততো বাড়তে থাকে। পুরুষদের কোমরের সাইজ 40 এবং মহিলাদের 35 এর উপরে গেলেই বুঝতে হবে হাই ব্লাড প্রেসার এর ঝুঁকি বাড়ছে। তাই অবশ্যই স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রণে রাখতে হবে এবং ওজন বৃদ্ধির হার কমাতে হবে কারণ ওজন বৃদ্ধি ও হাই ব্লাড প্রেসার এর অন্যতম কারণ।
নিয়মিত ব্যায়াম করা-
নিয়মিত ব্যায়াম আমাদের ব্লাড প্রেসার কে নিয়ন্ত্রিত রাখে। উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত ব্যায়ামের ভূমিকা অতুলনীয়। নিয়মিত ব্যায়াম করলে আমাদের শারীরিক অন্যান্য সমস্যা যেমন হয় তেমন হাই ব্লাড প্রেসার ও দূর হয়ে যায়। ব্যায়াম এর ভিতরে রয়েছে হাঁটা, দৌড়ানো, সাইকেল চালানো, সাঁতার কাটা ইত্যাদি। আপনি যদি বিভিন্ন কারণে সকল কিছু নাও করতে পারেন নিয়মিত সকাল বেলা হাটার অভ্যাস অবশ্যই গড়ে তুলুন। কারণ হাঁটার ফলে আপনার ব্লাড প্রেসার অনেকাংশে কমে যাবে। প্রতিদিন অন্ততপক্ষে 30 মিনিট করে হাঁটার অভ্যাস গড়ে তুলুন। এতে একদিকে যেমন আপনার ব্লাড প্রেসার অনিয়ন্ত্রিত থাকবে অন্যদিকে ডায়াবেটিস ইত্যাদির মতো ঝুঁকিও কমে যাবে।


খাদ্য নিয়ন্ত্রণ-
উচ্চ রক্তচাপের ক্ষেত্রে খাদ্য নিয়ন্ত্রণ একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। লাল চাল লাল আটা চর্বিহীন দুধ এবং কোলেস্টেরল ও চর্বিযুক্ত খাবার কম খান ধূমপানের অভ্যাস থাকলে অবশ্যই পরিত্যাগ করতে হবে কারণ ধূমপান উচ্চ রক্তচাপ এর অন্যতম প্রধান কারণ মদ্যপান থেকে বিরত থাকতে হবে।

নিয়মিত ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ এবং চিন্তা মুক্ত থাকা-

উচ্চ রক্তচাপের ক্ষেত্রে নিয়মিত ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করতে হবে। এবং নিয়মিত প্রেসার মাপতে হবে। মূলত উচ্চ রক্তচাপের ক্ষেত্রে কিছু লক্ষণ দেখা যায় যেমন ঘাড়ের ব্যথা ইত্যাদি। মাথা ঘোরা,চোখে অস্পষ্ট দেখা।
উচ্চ রক্তচাপের অন্যতম একটি কারণ হচ্ছে দুশ্চিন্তা করার দুশ্চিন্তা করলে আমাদের উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি বেড়ে যায় এবং যাদের উচ্চ রক্তচাপ রয়েছে তারা দুশ্চিন্তা করলে তাদের রক্ত চাপের পরিমাণ দ্রুত বৃদ্ধি পায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *