মোবাইল ফোন চুরি বা হারিয়ে গেলে কি করবেন

বর্তমান সময়ে মোবাইল ফোন সবাই ব্যবহার করেন। মোবাইল ছাড়া একটি মুহুর্ত থাকা অসম্ভব হয়ে দাড়িয়েছে। আমরা যোগাযোগ ছাড়াও বিভিন্ন কাজে মোবাইল ব্যবহার করে থাকি। এছাড়াও আমাদের মোবাইল ফোনে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ন তথ্য থাকে।সেসব তথ্য অন্য কারো হতে চলে গেলে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হতে পারি আমরা। তাই আমাদের মোবাইল ফোনটি সুরক্ষিত রাখা আমাদের সবারই গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। তবে তার পরে ও আমাদের মোবাইল ফোনটি হাতছাড়া হতে পারে।

খুব খারাপ লাগে যদি শখের মোবাইল ফোনটি হারিয়ে যায় চুরি হয়ে যায় বা ছিনতাইকারীদের দ্বারা ছিনতাই হয়। অনেকেই মোবাইল ফোন হারিয়ে যাওয়ার কারণে নানা রকম জটিলতায় পড়েন। মোবাইল ফোনটি চুরি বা হারিয়ে গেলেও যাতে করে আপনার তথ্য সুরক্ষিত থাকে তার জন্য আপনার ফোনটি সর্বদাই প্যাটার্ন, সিকিউরিটি, ফেস,ফিঙ্গার লক করে রাখবেন। এতে হারিয়ে গেলে, চুরি হলে বা ছিনতাই হলে ফ্লাস দিয়ে অপর ব্যক্তি আপনার ব্যক্তিগত তথ্য পাবেনা। অর্থাৎ ফ্লাশ করার কারণে ফোনটির তথ্য মুছে যাবে।এর পরও যদি আপনার মোবাইল ফোনটি হারিয়ে যায় তাহলে থানায় জিডি করবেন। জিডি করার সময় আপনার ফোনটির ব্রান্ড, মডেল নং ও ফোনে থাকা সিম নম্বর উল্লেখ করবেন।মোবাইল ফোনটি হারিয়ে গেলে খুজে পেতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল আপনার ফোনের IMEI Number. আই এম ই আই নম্বর বের করবেন *#06# চেপে। এখানে আপনি মোট দুটি IMEI number পাবেন।নম্বর দুটি অন্য কোন স্থানে লিখে রাখুন। সিমের নম্বর দেখবেন গ্রামীন, রবি, এয়ারটেল *২#, বিএল *511# বাটন প্রেস করে। থানায় জিডি করতে কোন টাকা লাগেনা। এবং আপানার নম্বর টি মুখস্ত রাখার চেষ্টা করবেন এতে আপনার ফোন হারানোর সমস্যা ছাড়াও অন্যান্য অনেক সমস্যায় পড়লে এটি সমধান হতে পথ হতে পারে। আপনার ফোনটি হারিয়ে গেলে জিডি করার পরে অপেক্ষায় থাকুন। ঐ মোবাইলে যে কোন সিম ব্যবহার করলে ট্রাকিং এর মাধ্যমে ব্যবহারকারী ব্যক্তির পরিচয়, লোকেশন ও নম্বর জানা যাবে। ভাগ্য ভাল হলে ৯০% সম্ভাবনা থাকবে ফোনটি ফিরে পাবার। কেননা জিডি করলে ফোনটি উদ্ধারের জন্য পদক্ষেপ নেওয়া হয়। এক্ষেত্রে পুলিশের সফলতা অনেক বেশি।
আর ভুল করেও কোন পুরাতন মোবাইল কিনবেন না। মোবাইলটি চোরাই হলে, ছিনতাইকৃত হলে বা হারানো হলে আপনি যদি ফোনটি কিনেন তাহলে ফেঁসে যাবেন। একান্তই যদি পুরনো মোবাইল কিনতে ইচ্ছুক হন তাহলে দোকানের মেমো, ফোনের বক্স ও লিখিতভাবে কিনুন। চোরাই মোবাইল কিনে বিপদে পড়ছেন এমন লোকের সংখ্যা খুব কম নয় ।

আর এ কারণে আমাদের সামান্য সতর্কতাই পারে আমাদের গুরুত্বপূর্ণ তথ্য হাতছাড়া এবং আমাদের মোবাইল ফোনটি চুরি হওয়ার হাত থেকে রক্ষা পেতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *