লিভার বা যকৃতকে সুস্থ রাখতে বর্জন করতে হবে যে ৫ টি বদ অভ্যাস

লিভার বা যকৃৎ ও আমাদের শরীরের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি অঙ্গ। যে ৫ কারণে আমাদের লিভার ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে বা তার কার্যক্ষমতা হারিয়ে ফেলতে পারে সে বিষয়ে আমরা আজ জানবো। লিভার বা যকৃৎ হচ্ছে আমাদের দেহের ছাঁকনির মতো কাজ করে। এটি আমাদের দেহে জমা বিভিন্ন টক্সিন এবং বিষাক্ত পদার্থ আমাদের শরীর থেকে আলাদা করে এবং আমাদের শরীর থেকে এগুলো বের করে দেয়। তাহলে আমরা স্বাভাবিকভাবেই বুঝতে পারছি যে আমাদের শরীরের লিভার এর প্রয়োজনীয়তা কত। তবে আমাদের নিত্যদিনের কিছু বাজে অভ্যাস আমাদের লিভারকে দিন দিন ক্ষতিগ্রস্থ করে তুলছে। আমাদের লিভার ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে গেলে সে তার কার্যক্ষমতা হারাবে এবং আমাদের শরীরে জমে থাকা টক্সিন আলাদা করতে সে বিফল হয়ে পড়বে। যার ফলে আমাদের শরীরের টক্সিন কোন আমাদের শরীরে জমতে থাকবে এবং এর ফলে আমাদের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ গুলো ধীরে ধীরে বিকল হতে শুরু করবে। তাই সময় থাকতে আমাদের লিভারের প্রতি যত্নশীল হতে হবে। এবং জানতে হবে কোন কাজ হলো আমাদের লিভারের পক্ষে ক্ষতিকর এবং সেগুলো থেকে দূরে থাকতে হবে।

 

লিভারের জন্য ক্ষতিকর অভ্যাস

লিভার বা যকৃতকে সুস্থ রাখতে বর্জন করতে হবে যে ৫ টি বদ অভ্যাস-

১- দেরি করে ঘুমোতে যাওয়া এবং দেরি করে ঘুম থেকে ওঠা-
আমরা অনেকে আছি অনেক রাত পর্যন্ত জেগে থাকে। আবার অনেক বেলা পর্যন্ত ঘুমাই যা আমাদের যকৃতের পক্ষে মোটেই ভালো নয়। আমাদের সকলের রাত দশটার থেকে 11 টার ভিতরে ঘুমাতে যাওয়া উচিত। আবার সকাল ছয়টা থেকে সাতটার ভিতর ঘুম থেকে উঠা উচিত। এর ফলে আমাদের শরীর যেমন সুস্থ থাকবে তেমনি আমাদের যকৃত থাকবে সুস্থ।কারণ সময় মত না ঘুমালে এবং ঘুম থেকে উঠলে আমাদের হজমের বিভিন্ন ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে এবং যার প্রভাব পড়ে গিয়ে আমাদের লিভারের উপর।

২-সকালে ঘুম ভাঙার পরেও শুয়ে থাকার বদভ্যাস –
অনেকে আছেন সকালবেলা ঘুম ভেঙে যাওয়ার পরেও আলস্যের কারণে শুয়ে থাকেন। এবং পায়খানা-প্রস্রাব চেপে রাখেন। যা আমাদের শরীরের পক্ষে যেমন ক্ষতিকর তেমনি লিভারের পক্ষে মারাত্মক ক্ষতিকর। যাদের এই অভ্যাস রয়েছে দ্রুত পরিবর্তন করা উচিত।

অনিয়মিত ঘুম লিভারের জন্য ক্ষতিকর

৩- সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে না খেয়ে থাকা-
সকালবেলা ঘুম থেকে উঠে অনেকেই অনেক বেলা পর্যন্ত না খেয়ে থাকেন। যা আমাদের লিভারের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর।

৪-মাত্রাতিরিক্ত ওষুধ সেবন:
মাত্রাতিরিক্ত ওষুধ সেবন আমাদের শরীরের পক্ষে যেমন ক্ষতিকর তেমনি লিভারের পক্ষে প্রচন্ড ক্ষতিকর।বিশেষ করে ব্যথানাশক ঔষধ মাত্রাতিরিক্ত সেবনের ফলে আমাদের লিভার ক্ষতিগ্রস্ত হয় এমনকি বিকল পর্যন্ত হয়ে যেতে পারে।

৫- অতিরিক্ত খাদ্যাভ্যাস:
আমরা অনেকেই আছি এমন কোন খাবার ভালো লাগলে তা অতিরিক্ত পরিমাণে খেয়ে ফেলি।যা প্রতিদিনের খাদ্যাভ্যাস এবং স্বাভাবিক পরিমাণ তুলনায় অনেক বেশি। এই অতিরিক্ত পরিমাণে খাবার গ্রহণ করার ফলে তার চাপ গিয়ে পড়ে লিভারের উপর। তাই আমাদের এই অতিরিক্ত খাদ্যাভ্যাস পরিত্যাগ করতে হবে এবং নিয়মিত এবং পরিমিত পরিমাণে খাদ্যাভ্যাস গড়ে তুলতে হবে।

মানুষের শরীরের লিভার এর অবস্থান।

লিভার ভালো রাখে এমন ১০ টি খাবার!

উপরোক্ত সকল কাজ থেকে বিরত থাকলে আমাদের লিভার থাকবে সুস্থ এবং তার পাশাপাশি আমাদের শরীরের সুস্থতা বজায় থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *